অপমানের কথা মনে রেখেছেন, দিলেন প্রস্তাব ফিরিয়ে: হাফিজ

ব্যাটে-বলে রান আসছিল না দেখে গত বছর পাক অলরাউন্ডার মোহাম্মদ হাফিজকে কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে বাদ দিয়েছিল পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। তিনি বুড়িয়ে গেছেন এমনটিই ইঙ্গিত দিচ্ছিল পিসিবির। কিন্তু এবার ঠিক উল্টোটাই ঘটেছে। পিসিবির প্রস্তাব উল্টো ফিরিয়ে দিলেন হাফিজ।

ক্রিকেট এডিক্টরের প্রতিবেদন অনুয়াযী, সাবেক পাক অধিনায়ক হাফিজকে এক লাখ পাকিস্তানি রুপির বেশি বেতনের প্রস্তাব দিয়েছে পিসিবি। চুক্তির জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেছে তারা। আর সেই লোভনীয় প্রস্তাব পায়ে ঠেলে দিলেন হাফিজ।

সেই হাফিজই জবাবটা দিলেন পারফরম্যান্স দিয়ে। এবার তার কাছে নত হলো পিসিবি, প্রস্তাব দিল চুক্তির। কিন্তু সেই অপমানের কথা বোধহয় মনের মধ্যে পুষে রেখেছেন হাফিজ। কিন্তু ৩৯ বছর বয়সী এই অলরাউন্ডার তাতে আগ্রহী নন। তিনি পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছেন, মাসিক বেতনের চুক্তির দরকার নেই তার।

এমন বক্তব্যের হাফিজকে সংরক্ষিত চুক্তির আওতায় এনেছে পিসিবি। সে হিসাবে অন্যদের মতো কেবল ম্যাচ ফি আর দৈনিক ভাতাই পাবেন তিনি। ইচ্ছা করেই কেন এক লাখ রুপির প্রস্তাব ঠুকরে দিলেন হাফিজ! বিষয়টি নিয়ে বিস্মিত নন দেশটির ক্রিকেটবোদ্ধারা।

তাদের মতে, ইংল্যান্ড সফরে টি-টোয়েন্টি সিরিজে চোখ ধাঁধানো পারফরম্যান্স দেখিয়েছেন হাফিজ। যে কারণে তাকে আবার আমলে নিয়েছে পিসিবি। অথচ গত বছরই তাকে কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে বাদ দিয়েছিল পিসিবি। সেই অভিমান থেকেই পিসিবির এই প্রস্তাবে সাড়া দেননি হাফিজ।

প্রসঙ্গত সদ্য সমাপ্ত হওয়া ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে দুদলের মধ্যে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক ছিলেন হাফিজ। দুটি হাফসেঞ্চুরিসহ ১৭৬.১৩ স্ট্রাইকরেটে করেন ১৫৫ রান। এমন পারফরম্যান্স দেখিয়ে হাফিজ জানান দিলেন– তিনি বুড়িয়ে যাননি। ইংল্যান্ড সফর শেষে হাফিজের এখন লক্ষ্য পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) দিকে। পিএসএলে হাফিজ খেলবেন লাহোর কালান্দারে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*