আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্তদের বাড়ি নির্মাণ করে দিল সেনাবাহিনী

পঞ্চগড়ে সম্প্রতি ঘূর্ণিঝড় আম্ফানের প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত তিনটি বাড়ি নিজেরাই কাজ করে নতুনভাবে নির্মাণ করে দিল সেনাবাহিনীর একটি দল।জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে শুক্রবার দিনভর সেনাবাহিনীর রংপুর অঞ্চলের উদ্যোগে ঘর নির্মাণ ও মেরামতের পাশাপাশি বিভিন্ন এলাকার ৯টি এতিমখানার এতিম ও দুস্থ শিশু, ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত, করোনায় অসহায় কর্মহীন মানুষ ও মুক্তিযোদ্ধাদের দুস্থ বিধবা স্ত্রীদের ঈদ উপহার সামগ্রী প্রদান করা হয়।

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ৬৬ পদাতিক ডিভিশনের ২৯ বীর ব্যটালিয়ানের মেজর তৌহিদুল বারী পঞ্চগড় সদরের তিনটি এতিমখানায় এবং লেফটেনেন্ট ইনজামামুল আমীন প্রীমন দেবীগঞ্জ উপজেলার ছয়টি এতিমখানার ১৪৭ জন এতিম ও দুস্থ শিশুর মাঝে ঈদ উপহার হিসেবে খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেন।

প্রতিটি প্যাকেটে উপহার হিসেবে ছিল পোলাও’র চাল, সেমাই, গুড়োদুধ, সয়াবিন তেল, মুরগির গোশত এবং ডিম। একই সাথে জেলায় সাম্প্রতিক ঝড় ও ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের দেয়া ত্রান ও সেনাবাহিনীর নিজস্ব তহবিলে একশজনের মাঝে এ ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

এছাড়া বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর লেডিস ক্লাবের পক্ষ থেকে জেলার মুক্তিযোদ্ধাদের ৫০ জন দুস্থ বিধবা স্ত্রীদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করা হয়। ২৯ বীর ব্যটালিয়ানের মেজর তৌহিদুল বারী জানান, করোনা দুর্যোগের শুরু থেকে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী মাঠে কাজ করছে। ত্রাণ সহায়তা, চিকিৎসা সেবা প্রদানের পাশাপাশি আমরা নানা রকম সচেতনতামূলক কাজ করে চলেছি।

এরই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার প্রয়াত ৫০ জন মুক্তিযোদ্ধার দুস্থ স্ত্রীকে ঈদ উপহার হিসেবে খাদ্য সহায়তা এবং বিভিন্ন এতিমখানা এতিম শিশুদের খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেই।এসব কাজের পাশাপাশি আমদের টিম নিয়ে জেলার বেশকিছু স্থানে ঘূর্ণিঝড় ক্ষতিগ্রস্তদের বাড়ি মেরামতেও সহায়তা করা হয়।।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *