জন্মভূমিতে খেলতে না পেরে হতাশ অজি ক্রিকেটার

প্রথমবারের মতো পাকিস্তান সুপার লিগে (পিএসএল) খেলার সুযোগ পেয়েছেন উসমান খাওয়াজা। এবারের মৌসুমে ইসলামাবাদ ইউনাইটেডের হয়ে খেলবেন অস্ট্রেলিয়ার এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। তবে পাকিস্তানের মাটিতে খেলতে না পারায় কিছুটা হতাশ তিনি।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ক্রিকেট খেললেও খাওয়াজার জন্ম পাকিস্তানের ইসলামাবাদে। যদিও শুরুর দিকে পরিবারের সবাই করাচিতে থাকতেন। কিন্তু খাওয়াজার জন্মের এক কিংবা ‍দুই বছর আগে চাকরির কারণে ইসলামাবাদে পরিবার নিয়ে চলে আসেন তাঁর বাবা।

যদিও পরবর্তীতে তাঁরা সবাই অস্ট্রেলিয়াতে গিয়ে বসবাস শুরু করেন। সেখানে থাকলেও বেশ কয়েকবারই পাকিস্তানে এসেছেন তিনি। সর্বশেষ এক দশক আগে ভাইয়ের বিয়েতে পাকিস্তানের এসেছিলেন খাওয়াজা। অস্ট্রেলিয়াতে থাকলেও নিজের জন্মস্থান পাকিস্তানকে এখনও ভালোবাসেন তিনি।

যে কারণে পিএসএলে প্রথমবারের মতো দল পেয়েই বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান জানিয়েছিলেন, নিজের জন্মস্থানে খেলতে মুখিয়ে রয়েছেন তিনি। তবে করোনা ও ফ্র্যাঞ্চাইজিদের অনুরোধে পাকিস্তান থেকে পিএসএল সরিয়ে নেয়া হয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। যে কারণে কিছুটা হতাশ খাওয়াজা। তবে পিএসএলে খেলা নিয়ে রোমাঞ্চিত তিনি।

এ প্রসঙ্গে সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে খাওয়াজা বলেন, ‘আমি রোমাঞ্চিত। স্পষ্টতই, পাকিস্তানে খেলতে পারলে কিছুটা ভালো লাগতো। সেই সুযোগ না হওয়ায় কিছুটা হতাশ। তবে আমরা শীঘ্রই ক্রিকেট খেলব। আমরা আমাদের খেলাটা খেলব। এটাই মুল জিনিস এবং দর্শকরা টিভিতে খেলা দেখবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এটা খুবই ভালো হতো যদি এটি (পিএসএল) পাকিস্তানে হতো। কিন্তু পরবর্তীতে এটাই সেরা জিনিস। ইনশাআল্লাহ ভবিষ্যতে অথবা পরবর্তী বছর পাকিস্তানে আমি আরও সুযোগ পাব। আমি কখনই পাকিস্তানে খেলতে পারিনি কারণ এটা আমাদের অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া সূচির সঙ্গে সাংঘর্ষিক। পিএসএল স্থগিত হওয়ায় আমি এখানে আসার এবং খেলার সুযোগ পেয়েছি।’

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.