জামানত ছাড়াই এক কোটি টাকা পর্যন্ত ঋণ

কুটির, মাইক্রো ও ক্ষুদ্র (সিএমএসএমই) খাতের উদ্যোক্তাদের ঋণের বিপরীতে ক্রেডিট গ্যারান্টির আওতা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এখন থেকে সর্বনিম্ন ২৫ হাজার টাকা থেকে এবং সর্বোচ্চ এক কোটি টাকার বিপরীতে ক্রেডিট গ্যারান্টি (সহায়ক জামানত) দেবে বাংলাদেশ ব্যাংক।

বৃহস্পতিবার (৩০ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের এসএমই অ্যান্ড স্পেশাল প্রোগ্রামস ডিপার্টমেন্টে এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। প্রসঙ্গত, এতদিন সিএমএসএমই ঋণে ক্রেডিট গ্যারান্টি সুবিধার পরিমাণ ছিল সর্বনিম্ন দুই লাখ টাকা এবং সর্বোচ্চ ৫০ লাখ টাকা।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, ‘প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত সিএমএসএমই খাতে প্রণোদনা প্যাকেজের দ্বিতীয় পর্যায়ের ২০ হাজার কোটি টাকার ঋণ বিতরণ শতভাগ বাস্তবায়ন নিশ্চিতকল্পে ক্রেডিট গ্যারান্টি স্কিমের আওতায় সিএমএসএমই খাতের জামানতবিহীন প্রান্তিক পর্যায়ের উদ্যোক্তা এবং অন্যান্য ক্ষতিগ্রস্ত উদ্যোক্তাদের ক্রেডিট গ্যারান্টি সুবিধার আওতায় অন্তর্ভুক্তিকরণের মাধ্যমে এ খাতে ঋণপ্রবাহ আরও বৃদ্ধির লক্ষ্যে স্কিমের ঋণের সীমা পুনর্নির্ধারণ করার আবশ্যকতা দেখা দিয়েছে।’

প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়, ‘সিএমএসএমই খাতে বিশেষ ঋণ সুবিধা দ্রুত বাস্তবায়নের মাধ্যমে দেশের অর্থনীতি পুনরুদ্ধার কার্যক্রম ত্বরান্বিত করার লক্ষ্যে এতদিন সর্বনিম্ন দুই লাখ টাকা এবং সর্বোচ্চ ৫০ লাখ টাকার পরিবর্তে যথাক্রমে সর্বনিম্ন ২৫ হাজার টাকায় এবং সর্বোচ্চ এক কোটি টাকায় ঋণসীমা পুনর্নির্ধারণ করা হলো।’

উল্লেখ্য, মহামারির সময়ে ব্যাংকগুলো যাতে বেশি বেশি ছোট ঋণ বিতরণ করে, সেজন্য গত বছরের জুনে ‘ক্রেডিট গ্যারান্টি স্কিম বা ঋণ নিশ্চয়তা স্কিম’ নামে একটি তহবিল গঠন করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। সরকার ও বাংলাদেশ ব্যাংক এই তহবিলের প্রয়োজনীয় অর্থের সংস্থান করছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.