দুর্নীতির অভিযোগে আইসিসির কাঠগড়ায় স্যামুয়েলস

দুর্নীতির অভিযোগে আইসিসির কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হল ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক সুপারস্টার মারলন স্যামুয়েলসকে। তার বিরুদ্ধে চারটি পৃথক অভিযোগ দায়েরের কথা জানিয়েছে বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি। আবুধাবি টি-টেন লিগের দুর্নীতি বিরোধী ধারা ভঙ্গ করায় স্যামুয়েলসের বিরুদ্ধে আইসিসির কাছে নালিশ করে এমিরেটস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)।

তার বিরুদ্ধে অভিযোগগুলো হল- ২.৪.২ নম্বর ধারা ভঙ্গ করে খেলাকে অসম্মানিত করতে পারে এমন কোনো উপহার, অর্থ, আতিথেয়তা বা অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা প্রাপ্তির বিষয়ে দুর্নীতি বিরোধী কর্মকর্তাকে তথ্য প্রকাশ করতে ব্যর্থ হওয়া। ২.৪.৩ নম্বর ধারা ভঙ্গ করে ৫০ ডলার বা তারও বেশি মূল্যের উপঢৌকন গ্রহণের তথ্য দুর্নীতি দমন বিভাগের কাছে গোপন করা।
২.৪.৬ নম্বর ধারা ভঙ্গ করে আইসিসির দুর্নীতি বিরোধী কর্মকর্তাকে সহায়তা না করা। তদন্ত কাজে সহায়তা করতে পারে এমন তথ্য প্রদানে বাধার সৃষ্টি করা। ২১ সেপ্টেম্বর থেকে ১৪ দিন সময় পাচ্ছেন স্যামুয়েলস, এই সময়ের মধ্যে তাকে জবাবদিহি করতে হবে। নিজেকে নির্দোষ প্রমাণিত করতে না পারলে শাস্তি হতে পারে স্যামুয়েলসে। পেতে পারেন ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ডে নিষেধাজ্ঞাও।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় দলের জার্সিতে ৭১টি টেস্ট, ২০৭টি ওয়ানডে ও ৬৭টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন স্যামুয়েলস। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তার দখলে আছে ১১ হাজার ১৩৪ রান ও ১৫২ উইকেট। ২০১৮ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর গ্রহণ করেন তিনি। সিলেটে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে ছিল তার খেলোয়াড়ি জীবনেরও শেষ ম্যাচ।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.