নারী ম্যাজিস্ট্রেটের বিরুদ্ধে অভিনব জালিয়াতির অভিযোগ

করোনাকালে হতদরিদ্রদের ত্রাণসহায়তা দিতে সহকর্মী ও পরিচিতজনদের কাছ থেকে টাকা তুলে আ’ত্মসাতের অ’ভিযোগ উঠেছে সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (প্রশিক্ষণরত) নিশাত ফারাবীর বিরুদ্ধে। তিনি ৩৮তম বিসিএসে সহকারী কমিশনার হিসেবে নিয়োগ পেয়ে বর্তমান সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সংযুক্ত আছেন।

গত ১৯ ডিসেম্বর (রোববার) নিশাতের ব্যাচের কর্মকর্তারা এস এম আব্রাহাম লিংকন এ বিষয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নিতে মন্ত্রিপরিষদ সচিবকে চিঠি দিয়েছেন। চিঠিতে লেখা তথ্যমতে, কয়েকজন অসহায় শিক্ষার্থীকে সহায়তার নামে ফারাবি ৩৮তম বিসিএস ব্যাচের কয়েক শ’ কর্মকর্তার কাছ থেকে অর্থ সংগ্রহ করেছেন।

তথ্যমতে, পিএসসি কর্তৃক সুপারিশপ্রাপ্তির পর থেকেই নিশাত ফারাবী বিভিন্ন অজুহাতে প্রথমে ‘অসহায় ছাত্রকে সহায়তা’র নামে তহবিল সংগ্রহ করেন। এ ছাড়া সরকারি তথ্য ও সেবা নম্বরে (৩৩৩ কোড) দরিদ্র মানুষজন সহায়তা চাচ্ছে উল্লেখ করে তাদের জন্য ফান্ড সংগ্রহ করেন। ৩৮তম বিসিএসের কর্মকর্তাদের কাছে নিজের ব্যক্তিগত ফেসবুক মেসেঞ্জার আইডি (নিশাত ফারাবী অন্তরা) থেকে সম্বলহীন, গরিবদের জন্য ফান্ড কালেকশন করছেন।

নিশাত ফারাবী মিলিটারি ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির (এমআইএসটি) ছাত্রী ছিলেন। এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অনেকের কাছ থেকেও তিনি একই কায়দায় অর্থ সংগ্রহ করেছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে। তিনি বিকাশ নম্বর, ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নম্বর ব্যবহার করে এই অর্থ নিয়েছেন। যে নম্বরগুলো ব্যবহার করে এই অর্থ নিয়েছেন সেগুলো নিশাত ফারাবীর নামে নিবন্ধনকৃত বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

চিঠিতে ৩৮তম বিসিএস ব্যাচের পক্ষে এস এম আব্রাহাম লিংকন চিঠিতে আরও লিখেছেন, অভিযুক্ত নিশাত ফারাবীর প্রতারণা সত্য হলে এমন কাজ সিভিল সার্ভিসের মর্যাদাই শুধু নষ্ট করবে না, উপরন্তু সরকারি কর্মকর্তা ও সরকারের ওপর মানুষের বিশ্বাস ও ভালোবাসা হ্রাস পাবে। এ জন্য তিনি ঘটনার তদন্ত সাপেক্ষে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান জানান।

ঘটনার বিষয়ে নিশাত ফারাবী গণমাধ্যমকে বলেন, বিষয়টি ডিসি স্যার (ডিসি সিরাজগঞ্জ) হ্যান্ডেল করছেন। আপনি তার সঙ্গে কথা বলতে পারেন। সিরাজগঞ্জের জেলা প্রশাসক ফারুক আহাম্মদ জানান, নিশাত প্রশিক্ষণে রয়েছেন। ফিরে এলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এদিকে নিশাতের স্বামী এস এম রবিন শীষ সিরাজগঞ্জ সদরের এসিল্যান্ড বলেও জানা গেছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.