ফুলহ্যামকে উড়িয়ে আর্সেনালের দুর্দান্ত শুরু

দাপুটে জয় দিয়ে নতুন মৌসুম শুরু করল আর্সেনাল। ফুলহ্যামকে ৩-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে গানাররা। আর্সেনালের হয়ে অভিষেক ম্যাচেই আলো ছড়ালেন উইলিয়ান। নিজে গোল না পেলেও এই ব্রাজিলিয়ানের অ্যাসিস্টে বল জালে জড়ান গ্যাব্রিয়েল ও এমেরিক ওবামেয়াং। অন্য গোলটি আসে ফরাসি ফরোয়ার্ড লাকাজেতের পা থেকে।

গত আসরে টেবিলের আটে থেকে লিগ শেষ করেছিল আর্সেনাল। তবে কমিউনিটি শিল্ড জিতে আত্নবিশ্বাসী ছিল আর্তেতার দল। সেই সঙ্গে চেলসি থেকে ব্রাজিলিয়ান উইলিয়ান আর লিলের ডিফেন্ডার গ্যাব্রিয়েল যোগ দেওয়ায় অনেকটাই নির্ভার হয়ে মাঠে নামে আর্সেনাল শিবির।

প্রিমিয়ার লিগের উদ্বোধনী দিনেই আলো ছড়ালেন উইলিয়ান। গোলের দেখা না পেলেও এ ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড পুরো মাঠ চসে বেড়িয়েছেন। দুটি গোলে অবদান রাখার পাশাপাশি আর্সেনালের জয়ে রাখেন বড় ভূমিকা।

লন্ডনের ক্র্যাভেন কটেজে ম্যাচের শুরুতেই আধিপত্য ছিল আর্সেনালের। প্রতিপক্ষের রক্ষণদূর্গে কাঁপন ধরিয়ে দেয় গানাররা। তাইতো ৮ মিনিটে ফরাসি ফরোয়ার্ড লাকাজেতের গোলে এগিয়ে যায় আর্সেনাল।

পিছিয়ে পড়ে গোল শোধে মরিয়া হয়ে ওঠে ফুলহ্যাম। তবে ফরোয়ার্ডদের ব্যর্থতায় সমতায় ফিরতে পারেনি পার্কারের দল। যদিও ব্যবধান দ্বিগুণ করার সুযোগ পেয়েছিল গানাররা।বাঁধা হয়ে দাঁড়ায় পোস্ট। ১ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় আর্তেতার দল।

বিরতির পরও দাপুটে ফুটবল খেলে আর্সেনাল। একের পর এক আক্রমণে নাস্তানাবুদ ফুলহ্যাম ডিফেন্স। ৪৯ মিনিটে উইলিয়ানের কর্নার থেকে গ্যাব্রিয়েলের দুর্দান্ত হেডে পরাস্ত ফুলহ্যাম গোলকিপার। স্কোর লাইন ২-০।

৮ মিনিট পরই আবারও ব্যবধান বাড়ায় গানাররা। লেফট উইং দিয়ে আক্রমণে উঠে কোনাকুনি শটে জাল খুঁজে নেন অধিনায়ক ওবামেয়াং। শেষ পর্যন্ত আর কোনও গোল না হলে জয় দিয়েই লিগে মিশন শুরু করে আর্সেনাল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *