ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে এরদোয়ানের সতর্কবার্তা

ভূমধ্যসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধান নিয়ে তুরস্কের সঙ্গে টানাপোড়েনে গ্রিস ও সাইপ্রাসের হয়ে ইন্ধন জোগাচ্ছে ফ্রান্স। এ বিষয়ে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাঁক্রোকে সতর্ক করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান। তুরস্কের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে সম্প্রচারিত এক ভাষণে ফ্রান্সের উদ্দেশে এরদোয়ান বলেন, ‘ঝামেলায় জড়াবেন না’।

গ্রিস ও তুরস্কের মধ্যে ভূমধ্যসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধান নিয়ে বহুদিনের বিবাদ রয়েছে। সম্প্রতি তুরস্ক সাইপ্রাসের নিকটবর্তী নিজেদের অংশে তেল-গ্যাস অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আর এটার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে গ্রিস।

গ্রিসকে সমর্থন দিচ্ছে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন (ইইউ)। তাতে করে গ্রিস ও তুরস্ক উভয় দেশই ভূমধ্যসাগরে তাদের যুদ্ধজাহাজ ও আকাশপথে বিমানের মহড়া বাড়িয়েছে। এ নিয়ে দুটি দেশের মধ্যে বেশ উত্তেজনাও বিরাজ করছে কিছুদিন ধরে।

এদিকে, ভূমধ্যসাগরে খনিজ সম্পদ আহরণে বিস্তার বাড়ানোয় এবং নৌশক্তি বৃদ্ধি করায় গ্রিস ও সাইপ্রাসের সঙ্গে ন্যাটোভুক্ত তুরস্কের টানাপোড়েন যখন চরমে ঠেকেছে তখন আঙ্কারার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে ন্যাটোর আরেক শক্তিশালী দেশ ফ্রান্স। এসব নিয়ে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টের সমালোচনা করে এরদোয়ান বলেছেন, তার ঐতিহাসিক জ্ঞানের অভাব রয়েছে। আমার সঙ্গে তিনি আরও সমস্যায় জড়াতে যাচ্ছেন।

ভূমধ্যসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধান নিয়ে তৈরি উত্তেজনার বিষয়ে একটি সুরাহা করতে চাচ্ছে মার্কিন নেতৃত্বাধীন সামরিক জোট ন্যাটো। তুরস্কও চাচ্ছে আলোচনার মাধ্যমে একটি সমাধানে আসতে। কিন্তু গ্রিস যদি আলোচনা না করতে চায় তাহলে দেখে নেওয়ার হুমকিও দিয়েছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *