বিয়ের পরিকল্পনা করতে এসে মারা গেলেন ফুটবলার

বাড়িতে বিয়ের কথাবার্তা চলছে। কথা পাকা করতে হলে পাত্রকে তো আসতে হবে। তাই ক্লাব থেকে এক দিনের ছুটি নিয়ে বিয়ের পরিকল্পনা চূড়ান্ত করার জন্য যাচ্ছিলেন আহমেত কালিক। পথেই তুরস্কের এই ফুটবলার দু’র্ঘটনার কবলে পড়েন। তার আর বিয়ের পরিকল্পনা করা হয়ে ওঠেনি। আহমেত কালিক পাড়ি জমান না ফেরার দেশে।

এক বিবৃতিতে তার ক্লাব গালতাসারা বলেছে, ‘আমাদের খেলোয়াড় আহমেত কালিককে হারিয়ে আমরা গভীরভাবে শোকাহত। কোনিয়াস্পোরে আসার প্রথম দিন থেকেই আমাদের সমর্থক এবং শহরের মানুষদের ভালবাসা অর্জন করে নিয়েছিলেন তিনি।’ ২০১৫ থেকে ২০১৭ সালের মধ্যে তুরস্ক জাতীয় দলের হয়ে আটটি ম্যাচ খেলেছেন এই সেন্টার ব্যাক। ২০১৬ সালের ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপেও দলের অংশ ছিলেন। যদিও কোনো ম্যাচ খেলার সুযোগ হয়নি।

মৃত্যুকালে আহামেত কালিকের বয়স হয়েছিল ২৭ বছর। তুর্কি ওয়েবসাইট ‘স্পোর অ্যারেনা’র প্রতিবেদন অনুযায়ী, গত মঙ্গলবার রাজধানী আঙ্কারার কাছে একটি মোটরওয়েতে দুর্ঘ’টনার শি’কার হন আহমেত কালিক। তাঁর মৃ’ত্যুতে শোক প্রকাশ করে বিবৃতি দিয়েছে তুর্কি এফএ। ২০২০ সালে কোনিয়াস্পোরে যোগ দেওয়ার আগে তিন বছর গালাতাসারা ক্লাবটির হয়ে ৫০টির বেশি ম্যাচ খেলেছিলেন কালিক।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.