লাদাখে সেনা বাড়াচ্ছে চীন, এম-৭৭৭ কামান নিয়ে প্রস্তুত ভারত

পূর্ব লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় (এলএসি) ফের সেনা বাড়াচ্ছে চীন। শনিবার লেহ্তে পৌঁছে এ মনব্য করলেন ভারতের সেনাপ্রধান জেনারেল মনোজ কুমার নারভানে। তিনি বলেন, পুরো এলএসিজুড়েই নতুন করে চীনা সেনা মোতায়েন করা হচ্ছে।

আমাদের কাছে যা উদ্বেগের বিষয়। লাদাখের পাশাপাশি অরুণাচল প্রদেশের এলএসিতেও চীনা সৈন্য সংখ্যা বাড়ানোড হয়েছে বলে জানান ভারতীয় সেনাপ্রধান। তবে যে কোনো পরিস্থিতির মোকাবিলায় ভারতীয় সেনা প্রস্তুত রয়েছে বলেও জানান তিনি।

মহাত্মা গান্ধীর ১৫২তম জন্মদিবস উপলক্ষ্যে শনিবার লেহ্ শহরে বিশ্বের বৃহত্তম খাদির জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। জেনারেল নারভানের পাশাপাশি ওই কর্মসূচিতে ছিলেন কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল লাদাখের লেফটেন্যান্ট গভর্নর এম কে মাথুর।

দু’দিনের লাদাখ সফরে এসে রেজিংলায় সেনার অগ্রবর্তী ঘাঁটিতেও যান জেনারেল নারভানে। ভারতীয় সেনাবাহিনী সূত্রের খবর, পূর্ব লাদাখে সম্ভাব্য চীনা হামলা মোকাবিলায় ইতোমধ্যেই এম-৭৭৭ এবং কে-৯ বজ্র হাউইৎজার কামান মোতায়েন করা হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের বিএই সংস্থার তৈরি ১৫৫ মিলিমিটারের (৩৯ ক্যালিবার) এম-৭৭৭ আফগানিস্তানে ন্যাটো বাহিনীর অন্যতম হাতিয়ার ছিল। বিশ্বে এটিই প্রথম ১৫৫ মিলিমিটার কামান, যার ওজন চার হাজার ২১৮ কিলোগ্রামের কম। ফলে হেলিকপ্টারের সাহায্যে দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় মোতায়েন করা যায় সহজেই।

মিনিটে পাঁচ রাউন্ড গোলা ছোড়া যায় এম-৭৭৭ কামান থেকে। পাল্লা সর্বোচ্চ ৩০ কিলোমিটার। অন্যদিকে সাঁজোয়া গাড়িবাহী ১৫৫ মিলিমিটার হাউইৎজার কে-৯ বজ্র দক্ষিণ কোরিয়ার প্রযুক্তিগত সহায়তায় বানিয়েছে ভারত।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.