শুরুর বিপর্যয় কাটিয়ে চ্যালেঞ্জিং পুঁজি শ্রীলঙ্কার

৮ রানে নেই ৩ উইকেট। শুরুতেই বড় বিপর্যয়ে পড়েছিল শ্রীলঙ্কা। তবে পাথুম নিশাঙ্কা আর হাসারাঙ্গা ডি সিলভার ১২১ রানের জুটিতে সেই বিপর্যয় কাটিয়ে চ্যালেঞ্জিং পুঁজিই গড়েছে দাসুন শানাকার দল। আবুধাবির শেখ আবু জায়েদ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ৭ উইকেটে ১৭১ রান তুলেছে লঙ্কানরা। অর্থাৎ জিততে হলে আয়ারল্যান্ডকে করতে হবে ১৭২ রান।

টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই আইরিশদের বোলিং তোপে পড়ে লঙ্কানরা। ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই ধাক্কা খায় তারা। কুশল পেরেরাকে গোল্ডেন ডাকে ফেরান পল স্টারলিং। পরের ওভারে টানা দুই বলে দুই উইকেট জশ লিটলের। আইরিশ ডানহাতি পেসার ওভারের তৃতীয় বলে দিনেশ চান্দিমাল (৬) আর চতুর্থ বলে আভিষ্কা ফার্নান্ডোকে (০) বোল্ড করেন। ইনিংসের ১০ বল যেতেই ৮ রানে হারায় ৩ উইকেট।

সেই বিপর্যয় থেকে দলকে উদ্ধার করেছেন পাথুম নিশাঙ্কা আর হাসারাঙ্গা ডি সিলভা। দুজন মিলে ১৩.৩ ওভার খেলে ১২১ রান যোগ করেছেন। শেষ পর্যন্ত ১৬তম ওভারে এসে এই জুটিটি ভাঙেন মার্ক এডায়ার, ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে হাসারাঙ্গাকে বানান ক্যাচ। ৪৭ বলে ১০ বাউন্ডারি আর এক ছক্কায় গড়া হাসারাঙ্গার ইনিংসটি ছিল ৭১ রানের।

জুটির অপর সঙ্গী নিশাঙ্কা সাজঘরে ফেরেন ১৯তম ওভারে, লিটলের চতুর্থ শিকার হয়ে। ৪৭ বলে ৬ চার আর এক ছক্কায় নিশাঙ্কা করেন ৬১ রান। শেষদিকে অধিনায়ক দাসুন শানাকার ১১ বলে ২১ রানের হার না মানা ইনিংসে ৭ উইকেটে ১৭১ রান পর্যন্ত গেছে লঙ্কানরা। আইরিশ বোলারদের মধ্যে সবচেয়ে সফল জশ লিটলই। ৪ ওভারে ২৩ রান দিয়ে এই পেসার নেন ৪টি উইকেট।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.