শেষ ওভারের ‘ডেড বল’ নিয়ে মুখ খুললেন মাহমুদউল্লাহ

বাংলাদেশের ক্রিকেটকে আজকের এই উচ্চ পর্যায়ে নিয়ে আসতে যে কয়জন ক্রিকেটার সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছেন তাঁর মধ্যে মাহমুদউল্লাহ অন্যতম। এই পর্যন্ত অনেক রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন এই তারকা ক্রিকেটার। নতুন খবর হচ্ছে, স্বল্প পুঁজি নিয়ে শেষ ওভারে বাংলাদেশকে প্রায় জিতিয়েই দিয়েছিলেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

শেষ ওভারে দরকার ছিল ৮ রান। যার সর্বশেষ সমীকরণ দাঁড়ায় ১ বলে ২ রান। শেষ বলটি মাহমুদউল্লাহ ডেলিভারি করার পর হঠাৎ সরে যান ব্যাটার নওয়াজ। বল স্টাম্পে লাগলেও আম্পায়ার ডেড বল ঘোষণা করেন। এর প্রতিশোধ হিসেবে পরে মাহমুদউল্লাহও বল করতে এসে শেষ পর্যন্ত বল ডেলিভারি না করে দাঁড়িয়ে যান। মাঠে তখন রুদ্ধশ্বাস উত্তেজনা।

মাহমুদউল্লাহ ইতোমধ্যেই পাঁচ বলে তিন উইকেট শিকার করে ফেলেছেন। একটি ছক্কাও হজম করেছেন। শেষ বলে বাউন্ডারি মেরে পাকিস্তানের জয় নিশ্চিত করেন নওয়াজ। ১ ওভার বল করে ১০ রানে ৩ উইকেট নিয়েও বাংলাদেশকে জেতাতে পারেননি মাহমুদউল্লাহ। ওই ডেড বল নিয়ে বাংলাদেশি ক্রিকেটপ্রেমীদের মাঝে তৈরি হয় উত্তেজনার।

কারণ মাহমুদউল্লাহ বল ডেলিভারি করে ফেলেছিলেন। তার পর সরে যান নওয়াজ। বলটি বৈধ হলে নওয়াজ আউট হতেন আর ১ রানে জিতে যেত বাংলাদেশ। আম্পায়ার বলটিকে ‘ডেড’ ঘোষণার পর বাংলাদেশ অধিনায়ককে বেশ উত্তেজিত ভঙ্গিতে কথা বলতে দেখা যায়। ৫ উইকেটে হারের পর ম্যাচ শেষে মাহমুদউল্লাহ কথা বলেছেন সেই ‘ডেড বল’ নিয়ে।

আম্পায়ারের সঙ্গে বাদানুবাদ প্রশ্নে তিনি বলেন, ‘আম্পায়ারকে আমি জিজ্ঞেস করেছিলাম, কারণ ও শেষ মুহূর্তে সরে গিয়েছিল। তাই আমি আম্পায়ারকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, এটা কি বৈধ বল কিনা। এর বাইরে কিছু না। আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই ফাইনাল। এবং অবশ্যই আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে শ্রদ্ধা জানানো উচিত।’

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.