সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনের ফলাফল প্রকাশ!

সিলেট-৩ আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন। বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত ফলাফলে তিনি নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টির মো. আতিকুর রহমানের থেকে ৬৫ হাজার ভোট বেশি পেয়েছেন।

শনিবার (০৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ৮টা থেকে দক্ষিণ সুরমা, ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জ উপজেলা নিয়ে সিলেট-৩ আসনের ১৪৯ টি কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হয় উপ-নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। উল্লেখ্য, চলতি বছরের ১১ মার্চ করোনা আক্রান্ত হয়ে সিলেট-৩ আসনের সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরীর মৃ’ত্যু হলে এ আসনটি ফাঁকা হয়।

আরো পড়ুন: করোনা পজিটিভকে চিকিৎসক ভাবলেন অন্তঃসত্ত্বা! যোগাযোগ বার্তায় ভুল বুঝাবুঝির কারণে অনেক সময় ব্যতিক্রম কিছু ঘটে যায়! এমনই এক কাণ্ড ঘটে গেল চিকিৎসক বান্ধবীর সঙ্গে এক নারীর।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক মেসেঞ্জারে বন্ধবীকে করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পাঠিয়ে ‘অন্যরকম’ অভিজ্ঞতা হলো হেলেন ফিলিপের। দুই বান্ধবীর কথোপকথন ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এতে মজায় মজেছেন নেটিজেনরা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজারের প্রতিবেদনে জানা গেছে, ৩৪ বছর বয়সী ব্যবসায়ী এক নারী নিজের কোভিড রিপোর্ট পাঠিয়েছিলেন তার চিকিৎসক বান্ধবীকে। ফেসবুক মেসেঞ্জারে সেই পাঠানো বার্তাকে ভালো করে দেখেননি ওই চিকিৎসক। তিনি ভেবেছিলেন, তার বান্ধবী অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর দিচ্ছেন তাকে।

ওই রিপোর্ট দেখে তার বান্ধবী তাকে জিজ্ঞাসা করেন, কেমন অনুভূতি হচ্ছে? জবাবে হেলেন লেখেন, ‘খুব গুরুতর কিছু নয়। তবে কাশি হচ্ছে, গলায় একটু ব্যথা রয়েছে।’ এর পরই ওই চিকিৎসক জিজ্ঞাসা করেন, এই ফলে সে খুশি কি না? তা শুনেই ঘাবড়ে যান হেলেন।

পাল্টা উত্তরে লেখেন, ‘কোভিড নিয়ে? আমি খুশি নই। কিন্তু লক্ষণও বেশি নেই।’ এই উত্তর শুনে নিজের ভুল বুঝতে পারেন ওই চিকিৎসক। তখন তিনি লেখেন, ‘ওহ! আমি ভেবেছি ওটা প্রেগন্যান্সির পরীক্ষা।’ চিকিৎসক বান্ধবীর সঙ্গে এই কথোকথনের ছবি নিজেই শেয়ার করেছেন হেলেন।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.